দেশজুড়ে

নদীর তীরে পাওয়া নবজাতকের ঠাঁই হলো সিলেটের সোনামনি নিবাসে

প্রিন্ট করুন


হবিগঞ্জের সংবাদ, অনলাইন ডেস্ক।
হবিগঞ্জের আজমিরীগঞ্জে বছিরা নদীর পাড় থেকে উদ্ধার হওয়া নবজাতকের পরিবার শনাক্ত করতে পারেনি পুলিশ। তাই সেই নবজাতককে সিলেটের সোনামনি নিবাসে রাখা হয়েছে।

শুক্রবার (৯ ফেব্রুয়ারি) সকালে আজমিরীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে উপজেলা সমাজসেবা কার্যালয়ের এক কর্মকর্তা, আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্য ও স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের এক নার্সের মাধ্যমে অ্যাম্বুলেন্সে করে সিলেটের বাগবাড়িতে অবস্থিত সোনামনি নিবাসে শিশুটিকে নিয়ে যাওয়া হয়।

এদিকে নবজাতকের ভরণপোষণের দায়িত্ব নেওয়ার জন্য উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ও শিশু কল্যাণ বোর্ডের সভাপতি জুয়েল ভৌমিক বরাবর লিখিত আবেদন জমা দিয়েছেন স্থানীয় দুই নারী ৷

নদীর তীর থেকে নবজাতককে কুড়িয়ে পাওয়া আলফিনা বেগম কান্নাকণ্ঠে বলেন, আমি নিঃসন্তান। গত সোমবার ভোরে নদী থেকে পানি আনতে গিয়ে শিশুটিকে খুঁজে পাই ৷ তখন স্থানীয় জনপ্রতিনিধি, প্রশাসনের লোকজন শিশুটিকে আমার জিম্মায় দেয়। গত পাঁচ দিন ধরে হাসপাতালে শিশুটির দেখাশোনা করেছি। আমার ভাসুরের স্ত্রী শিশুটিকে বুকের দুধ পান করিয়েছেন। ভেবেছিলাম আমার নিঃসন্তানের দুঃখ বুঝি এবার ঘুচবে কিন্তু শিশুটিকে সিলেট নিয়ে গেল। শিশুটির ভরণপোষণের দায়িত্ব নিতে কর্তৃপক্ষের কাছে দাবি জানিয়েছি।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও শিশু কল্যাণ বোর্ডের সভাপতি জুয়েল ভৌমিক বলেন, পরিত্যক্ত অবস্থায় উদ্ধার হওয়া নবজাতকটি সিলেটের সোনামনি নিবাসে পাঠানো হয়েছে। আইনি পদক্ষেপের মাধ্যমে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।


Related Articles

Back to top button
Close