দেশজুড়ে

নবীগঞ্জের দাউদপুরে গ্রামের রাস্তা দখল নিয়ে বিরোধ উত্তেজনা বিরাজ করছে

প্রিন্ট করুন


স্টাফ রিপোর্টার। নবীগঞ্জ উপজেলার দীঘল বাক ইউনিয়নের দাউদপুর গ্রামের পূর্বের হাওর ও স্থানীয় বাজারের যাবার একমাত্র রাস্তাটি একটি প্রভাবশালী চক্র জবরদখলের গুরুতর অভিযোগ পাওয়া গেছে৷
এঘটনায় গ্রামের পঞ্চায়েত পক্ষ ও কুচক্রীদের মধ্যে চাপা ক্ষোভ ও উত্তেজনা বিরাজ করছে, যেকোন সময় রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের আশংকা করছেন এলাকাবাসী৷
জানাযায়, উপজেলার দীঘল বাক ইউনিয়নের দাউদপুর গ্রামের পূর্বের হাওর ও স্থানীয় সঈদপুর বাজার সহ এলাকায় যাতায়াতের একমাত্র রাস্তায় প্রতিবন্ধকতা সৃস্টি করে ঘর নির্মান সহ নানাভাবে রাস্তার জায়গা দখল করার অভিযোগ উঠে
একই গ্রামের মৃত চান মিয়ার পুত্র সফর মিয়া ও লায়েক মিয়া সহ তাদের লোকজনের উপর৷
এঘটনায় গ্রামবাসী প্রতিবাদ জানান,এমনকি এনিয়ে গ্রামে একাধিকবার সামাজিক বিচার বৈঠক বসলেও সামাজিক বিচার পঞ্চায়েত অমান্য করে বৃদ্ধাঙ্গুলি প্রদর্শন করে কথিত প্রভাবশালীরা৷ এঘটনায় গ্রামবাসী ও রাস্তার পক্ষে উক্ত জায়গার খরিদা সূত্রে মালিকানা দাবী করে একই গ্রামের নূর মিয়া নবীগঞ্জ থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন৷ থানায়
অভিযোগ দায়ের করা হলে ইনাতগঞ্জ পুলিশ ফাঁড়ির এ,এস আই আব্দস সামাদ আজাদ ঘটনাস্থলে পরিদর্শন করে উক্ত বিরোধীয় রাস্তায় ঘর বানানো থেকে বিরত থাকতে ও সবধরনের কাজ বন্ধ রাখতে
উভয় পক্ষকে মৌখিকভাবে নিষেধ দেন৷ এতে পরিস্থিতি একটু শান্ত হলেও ২৭ মে বৃহস্পতিবার এনিয়ে আবারো উত্তেজনা দেখা দেয়৷
এনিয়ে অভিযোগ দায়েরকারী নূর মিয়া বলেন আমাদের গ্রামের শত শত বছরের পুরাতন রাস্তাটি সফর মিয়া,লায়েক মিয়া গংরা জবর দখল করতে চায়,প্রকৃত পক্ষে এটা গ্রামের সাধারণ লোকজন যুগ যুগ ধরে রাস্তা হিসাবে ব্যবহার করে আসছেন, এমনকি এই রাস্তার বিরোধীয় জায়গাটি আমার নিজস্ব ক্রয়কৃত ভুমি, তবুও কুচক্রীরা গ্রামের রাস্তাটি জবর দখল করিতে মরিয়া হয়ে উঠেছে৷ এ বিষয়ে জানতে চাইলে স্থানীয় ইউপি সদস্য ফখরুল ইসলাম জুয়েল ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে রাস্তার উন্নয়নে বাধা প্রদানের তীব্র প্রতিবাদ ও নিন্দা জানান তিনি৷ এদিকে অভিযুক্ত সফর মিয়া ও লায়েক মিয়া এক প্রশ্নের জবাবে ঘটনাটি স্বীকার করলেও ও রাস্তার জায়গাটি তাদের ক্রয়কৃত বলেও দাবী করেন৷ এঘটনায় নবীগঞ্জ থানার ওসি ডালিম আহমেদ এর সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন আমরা অভিযোগ পেয়েছি, পুলিশ তদন্ত করছে এবং বিষটি অতি গুরুত্বের সহিত দেখছি আমরা, আইন ও সমাজের বিরুদ্ধে যে বা যাহারাই অপরাধ কর্মকাণ্ডে লিপ্ত থাকবে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে৷


এই বিভাগের সর্বশেষ

Back to top button
Close